বার্লিনে তনু ধর্ষণ-হত্যার প্রতিবাদে মানববন্ধন
Mir Monaz Haque, বৃহস্পতিবার, এপ্রিল ০৭, ২০১৬


বার্লিন: কুমিল্লা ভিক্টোরিয়া কলেজের ছাত্রী সংস্কৃতিকর্মী সোহাগী জাহান তনুকে ধর্ষণ ও হত্যার ঘটনায় প্রতিবাদে বার্লিনে প্রবাসী বাংলাদেশিরা নারীর প্রতি সহিংসতার বিরুদ্ধে ও ঘাতক ধর্ষকদের বিচারের দাবীতে সোচ্চার আন্দোলনের সাথে একাত্মতা ও সংহতি ঘোষণা করে মানববন্ধন ও বাংলাদেশ দুতাবাসে প্রধানমন্ত্রী বরাবর স্মারকলিপি প্রদান করে।

স্মারকলিপিতে উল্লেখ করা হয়, বাংলাদেশে নারী ও শিশু নির্যাতন ও হত্যার ক্রমবর্ধমান মাত্রা যেন দ্রুত বৃদ্ধি পাচ্ছে। আমরা মনে করি বিচার ব্যাবস্থার ত্রুটিবিচ্যুতি, ধীরগতি ও আইনের শাসনের দুর্বলতার সুযোগে অপরাধীরা উৎসাহিত হচ্ছে। সরকার ও প্রশাসনের কাছে আমরা নারী, শিশু, সংখ্যালঘু জনগোষ্ঠী, আদিবাসী সহ সকল প্রান্তিক মানুষের নিরাপত্তা ও অপরাধীদের দ্রুত বিচারের আওতায় আনার জন্য জোর দাবী করছি।

এ প্রসঙ্গে আমরা নারীর প্রতি সহিংসতার অন্যতম সামাজিক ও সাংস্কৃতিক উৎস, পিতৃতান্ত্রিক প্রচলিত ধারনার উল্লেখ করতে চাই। নারীকে গৃহবন্দী করার, নারীকে সম্পত্তি থেকে বঞ্চিত করার, নারীকে হেয় প্রতিপন্ন করার, নারীকে ভোগ্যবস্তু হিসেবে উপস্থাপন করার, নারীকে গনিমতের মাল আখ্যা দেয়ার ধর্মান্ধ মৌলবাদীদের যে প্রচারণা রয়েছে, আমরা সর্বতোভাবে এই প্রচারণাকে ঘৃনাভরে প্রত্যাখ্যান করছি। নারীর প্রতি সহিংসতার অন্যতম সামাজিক সাংস্কৃতিক মূল কারনকে বহাল রেখে নারীর প্রতি সহিংসতা বন্ধ করা যাবেনা।

বাংলাদেশে নারীর প্রতি সহিংসতা বন্ধ ও বাংলাদেশকে একটি মানবিক সমাজে উত্তরণের সংগ্রামে, আসুন আমরা সকল বাঙ্গালীরা দেশে ও দেশের বাইরে থেকে সন্মিলিত আওয়াজ তুলি।

বাঙ্গালী সে কুল্তুর ফোরাম জার্মানি এর উদ্যোগে নারী নেত্রী নুরজাহান খান নুরির নেতৃত্বে বার্লিন আ`লীগ সভাপতি মাসুদুর রহমান মাসুদ, সাধারণ সম্পাদক নুর এ আলম সিদ্দিকী রুবেল, সাবেক ছাত্রনেতা দুলাল মজুমদার, রানা ভুইয়া, ছাত্রলীগ নেতা এশিয়ান আকবর সুমন, সাদিয়াতুস সানিসহ বিপুল সংখ্যক প্রবাসী বাঙালি অংশগ্রহন করে।